নারীচক্রের সংসর্গ থেকে রোগের সূত্রপাত, বিজেপির মৃত্যু হতে চলেছে বাংলায়! বিস্ফোরক তথাগত

নারীচক্রের সংসর্গ থেকে রোগের সূত্রপাত, বিজেপির মৃত্যু হতে চলেছে বাংলায়! বিস্ফোরক তথাগত
Tathagata Roy Slams State BJP Leaders again

নজরবন্দি ব্যুরোঃ হোয়াটসঅ্যাপ ‘বিদ্রোহে’ তোলপাড় বঙ্গ বিজেপির অন্দরে। গত কয়েকদিন ধরে বঙ্গ বিজেপির অন্দরে ক্ষোভের আগুন যেন কিছুতেই প্রশমিত হচ্ছে না। এমনকি ক্ষোভের আগুনে জেরবার হয়ে সমস্ত সেল ভেঙে দিয়েছেন রাজ্য সভাপতি সুকান্ত মজুমদার। তবুও আলাদা করে নিজেদের মধ্যে আলোচনা চালিয়ে যাচ্ছিলেন বিজেপির বিক্ষুব্ধ নেতারা। এই পরিস্থিতিতে ফের বোমা ফাটালেন বিজেপি নেতা তথাগত রায়।

আরও পড়ুনঃ বিয়ের অনুষ্ঠানে বিশেষ ছাড়, নতুন বিধিনিষেধ জারি করল রাজ্য

এদিন ট্যুইটে কার্যত বিস্ফোরন ঘটিয়েছেন তথাগত, তিনি লিখেছেন, “শুশ্রূষা না করে লুকিয়ে রাখলে রোগ সারে না। রোগীরই মৃত্যু হয়। অর্থ এবং নারীচক্রের সংসর্গ থেকে রোগের সূত্রপাত। বিধানসভা নির্বাচনের খারাপ ফলের পরেও শুদ্ধিকরণ হয়নি। বাংলায় কি বিজেপির (BJP) মৃত্যু হতে চলেছে?” বঙ্গ বিজেপির অন্দরে যখন ঠাণ্ডা লড়াই চলছে তখন তথাগতর ট্যুইট যে তাতে ঘৃতাহুতির কাজ করবে তা বলাই বাহুল্য।

যদিও তথাগত রায় মাঝেমধ্যেই বঙ্গ বিজেপিকে খোঁচা দিয়ে ট্যুইট করেন। শুক্রবারও একটি টুইটে রাজ্য বিজেপিকে খোঁচা দিয়েছিলেন তিনি। লিখেছিলেন, “উত্তরপ্রদেশের বিজেপির মন্ত্রিসভা ছেড়ে মন্ত্রীরা সমাজবাদী পার্টিতে যোগ দিচ্ছে বলে যাঁরা উল্লসিত হচ্ছেন, তাঁদের মনে রাখা উচিত ঠিক একইরকম ঘটনা পশ্চিমবঙ্গেও ঘটেছিল। বিজেপির একনিষ্ঠ কর্মীদের বাদ দিয়ে তৃণমূল থেকে আসা যতরকম জঞ্জাল আর ট্রোজান ঘোড়াদের টিকিট দিয়েছিল বিজেপি। ফল তো সবাই দেখেছেন।”

নারীচক্রের সংসর্গ থেকে রোগের সূত্রপাত, বিজেপির মৃত্যু হতে চলেছে বাংলায়! বিস্ফোরক তথাগত

নারীচক্রের সংসর্গ থেকে রোগের সূত্রপাত, বাংলায় বিজেপির মৃত্যু হতে চলেছে!
নারীচক্রের সংসর্গ থেকে রোগের সূত্রপাত, বিজেপির মৃত্যু হতে চলেছে বাংলায়! বিস্ফোরক তথাগত

এদিকে শনিবার পোর্ট ট্রাস্টের একই ছাদের তলায় বিজেপির বিক্ষুব্ধরা বৈঠক করবেন। কারা থাকবেন? তা নিয়ে ইতিমধ্যেই আলোচনা শুরু হয়েছে। সূত্রের খবর, পোর্ট গেস্ট হাউসে শান্তনু ঠাকুরের উপস্থিতিতে জয়প্রকাশ মজুমদার, প্রতাপ বন্দ্যোপাধ্যায়, সায়ন্তন বসু, রীতেশ তেওয়ারি, সমীরণ সাহা-সহ অন্তত ২০ জন নেতা থাকতে পারেন।