অভিযোগ থাকলেও ফিরহাদে আস্থা! নাকি নতুন মুখে ভরসা?

নজরবন্দি ব্যুরোঃ কলকাতা পুরসভার মেয়র কে হবেন? তা ঘিরে ইতিমধ্যেই রাজনৈতিক মহলে চুলচেরা বিশ্লেষণ শুরু হয়েছে। নির্বাচন ঘোষণার আগে থেকেই বাছাই পর্ব শুরু করেছিল তৃণমূল। শেষ ঘোষণা বৃহস্পতিবার। শোনা যাচ্ছে অভিযোগ থাকলেও ফিরহাদে আস্থা রাখছেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়! পরবর্তী মেয়র হচ্ছেন তিনিই!

আরও পড়ুনঃ খোয়া গেল মুখ্যমন্ত্রীর নিরাপত্তারক্ষীদের আগ্নেয়াস্ত্র, পলাতক সন্দেহভাজন ব্যক্তি

আর কিছুক্ষণের মধ্যেই মহারাষ্ট্র নিবাস থেকে পুরসভার মেয়র ঘোষণা করতে চলেছে শাসক দল। এদিনের বৈঠকে উপস্থিত থাকার কত্যহা তৃণমূল সুপ্রিমো মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের। উপস্থিত থাকার কথা সর্বভারতীয় সাধারণ সম্পাদক অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়ের। সেখান থেকে পরবর্তী মেয়র ঘোষণা করবে তৃণমূল।

ফিরহাদ হাকিম ছাড়াও কলকাতা পুরনিগমের পরবর্তী মেয়র হিসাবে উঠে আসছে বেশ কতগুলি নাম। সেই তালিকায় প্রথমেই রয়েছেন দক্ষিণ কলকাতার সাংসদ মালা রায়। এবারের নির্বাচনে জয়লাভ করে ডবল হ্যাট্রিক করেছেন তিনি। তবে সাংসদ হওয়ার পাশাপাশি তিলোত্তমা উন্নয়নে কতটা জোর দিতে পারবেন তিনি? সেদিকে প্রশ্ন উঠেছে। এই তালিকায় রয়েছেন উত্তর কলকাতার অতীন ঘোষ। বিরোধীদের দক্ষিণ কলকাতার অভিযোগকে নস্যাৎ করে দিয়ে মমতার চয়েস ঘুরতে পারে অতীনের দিকেও।

রয়েছেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের ভাতৃবধু কাজরী বন্দ্যোপাধ্যায়। তাঁকে প্রার্থী করার পর থেকেই পরিবারতন্ত্র নিয়ে বিস্তর অভিযোগ তুলেছিল বিরোধীরা। তাই লাইনে থাকলেও পিছিয়ে রয়েছেন ডেবিউ প্রার্থী। বিশেষ নজরে থাকছেন দক্ষিণ কলকাতার জেলা সাংগঠনিক সভাপতি দেবাশীষ কুমার। সাংগঠনিক দক্ষতা নজর কেড়েছে তৃণমূল সুপ্রিমোর। আর অভিযোগ তাঁর বিরুদ্ধে সেভাবে নেই।

অভিযোগ থাকলেও ফিরহাদে আস্থা, কে হবেন মেয়র? 

অভিযোগ থাকলেও ফিরহাদে আস্থা, কে হবেন মেয়র? 
অভিযোগ থাকলেও ফিরহাদে আস্থা, কে হবেন মেয়র? 

কিন্তু তৃণমূলের অন্দরের খবর, কলকাতা পুরসভার পরবর্তী মেয়র হচ্ছেন ফিরহাদ হাকিম।কারণ, শোভন চট্টোপাধ্যায় মেয়র পদ থেকে ইস্তফা দেওয়ার পরেই বিপদের দিনে কলকাতা সামলেছিলেন ফিরহাদ। কম সময় মেয়র পদে থাকলেও জনপ্রিয়তা অর্জন করেছেন তিনি। তাই বিশ্বস্ত ববির ওপর কলকাতা পুরসভার দায়িত্ব পূর্ণ সময়ের জন্য সঁপে দিতে চাইছেন মুখ্যমন্ত্রী। তাই বিশেষ নজরে থাকছে আজকের বৈঠক। দুপুর ২ টো নাগাদ রয়েছে ঘোষণা।