DA Protest: ডিএ আন্দোলনে ৪৭ জন গ্রেফতার, ঘটনাকে দুর্ভাগ্যজনক বললেন বিচারপতি গঙ্গোপাধ্যায়

নজরবন্দি ব্যুরোঃ দ্রুত সরকারি কর্মচারীদের অবিলম্বে ৩৫ শতাংশ ডিএ বাড়াতে হবে, দ্রুত শূন্যপদে নিয়োগ করতে হবে, অস্থায়ী কর্মীদের স্থায়ী পদে নিযুক্ত করতে হবে। এই দাবিতে বুধবার রাজপথে আন্দোলনে নামেন সরকারি কর্মচারিরা। ডিএ আন্দোলনে ৪৭ জন গ্রেফতার। গ্রেফতার হয়েছেন কলকাতা হাইকোর্টের কয়েকজন কর্মী। সেই ঘটনাকে দুর্ভাগ্যজনক বলে দাবি করলেন বিচারপতি অভিজিৎ গঙ্গোপাধ্যায়।

আরও পড়ুনঃ জেলে বসে ১০ লক্ষ টাকা তোলা আদায়ে হুমকি, দুষ্কৃতীর নজরে প্রাক্তন তৃণমূল নেতা

অন্যদিকে, ধৃত ৪৭ জনের বিরুদ্ধে পুলিশকর্মীর কাজে বাধা, হিংসা ছড়ানো এবং মহিলা পুলিশকর্মীদের উদ্দেশ্যে কটুক্তি। সহ ৯ টি জামিন অযোগ্য ধারায় মামলা রুজু করা হয়েছে। ধৃত ৪৬ জনকে নিজেদের হেফাজতে চেয়ে আজ ব্যাঙ্কশাল আদালতে আবেদন জানানো হবে।

ডিএ আন্দোলনে ৪৭ জন গ্রেফতার, একাধিক ধারায় মামলা রুজু 
ডিএ আন্দোলনে ৪৭ জন গ্রেফতার, একাধিক ধারায় মামলা রুজু

উল্লেখ্য, বুধবার দ্রুত সরকারি কর্মচারীদের অবিলম্বে ৩৫ শতাংশ ডিএ বাড়াতে হবে, দ্রুত শূন্যপদে নিয়োগ করতে হবে, অস্থায়ী কর্মীদের স্থায়ী পদে নিযুক্ত করতে হবে। এই সংক্রান্ত একাধিক দাবিকে সামনে রেখে ধর্মতলা থেকে শুরু হয় অভিযান। এই অভিযানে সামিল হয়েছিল পশ্চিমবঙ্গ সরকারি কর্মচারিদের একাধিক সংগঠন।

ডিএ আন্দোলনে ৪৭ জন গ্রেফতার, একাধিক ধারায় মামলা রুজু 

ডিএ আন্দোলনে ৪৭ জন গ্রেফতার, একাধিক ধারায় মামলা রুজু 
ডিএ আন্দোলনে ৪৭ জন গ্রেফতার, একাধিক ধারায় মামলা রুজু

প্রথমে রানি রাসমণি রোডে মিছিলও আটকানো হয়। ত্রিস্তরীয় ব্যারিকেড ভেঙে এগিয়ে চলে মিছিল। তাঁদের বিক্ষোভের জেরে বিধানসভার ২ নম্বর গেটের সামনে তৈরি হয় ধুন্ধুমার পরিস্থিতি। পুলিশ আটকালে শুরু হয় বচসা। পরে পুলিশের সঙ্গে খণ্ডযুদ্ধ শুরু হয়। ডিএ আন্দোলনের মিছিলে পুলিশের অতিসক্রিয়তা নিয়ে অভিযোগ উঠেছে। এমনকি আন্দলনকারীদের ঘুষি মারার অভিযোগ উঠেছে পুলিশের বিরুদ্ধে। ঘটনায় ৪৭ জনকে গ্রেফতার করা হয়েছে। বৃহস্পতিবার ধৃত সরকারি কর্মীদের আদালতে তোলা হবে।