এবার ফেসবুক, ইনস্টা ও হোয়াটসঅ্যাপ ব্যবহারে লাগতে পারে টাকা? কি বলছে মেটা

এবার ফেসবুক, ইনস্টা ও হোয়াটসঅ্যাপ ব্যবহারে লাগতে পারে টাকা? কি বলছে মেটা
Facebook, Insta and WhatsApp may cost money?

নজরবন্দি ব্যুরোঃ ইন্টারনেট পরিষেবা সহজলভ্য হওয়ায় ফেসবুক, হোয়াটসঅ্যাপ বা ইনস্টাগ্রাম-এর মত সোশ্যাল মিডিয়া প্ল্যাটফর্ম এখন বলতে গেলে আবালবৃদ্ধবণিতা সকলেই ব্যবহার করেন। এর অন্যতম মূল কারণ হল – ইচ্ছেমত ডেটা রিচার্জ করলেই এই সমস্ত নেটমাধ্যমের সঙ্গে সংযুক্ত হওয়া যায়, এর মধ্যে কোনোটি ব্যবহার করতেই আলাদা করে টাকা লাগেনা।

আরও পড়ুনঃ পর্যটকদের জন্য খারাপ খবর, অনির্দিষ্টকালের জন্য বন্ধ হল টয় ট্রেন পরিষেবা

সেক্ষেত্রে আগামীদিনে এই চেনা ছবি পাল্টাতে চলেছে বলে মনে হচ্ছে, কেননা সম্ভবত মেটা (Meta) মালিকানাধীন এইসব সামাজিক মাধ্যম আর একেবারে ফ্রি-তে উপভোগ করা যাবেনা! মার্ক জ়াকারবার্গের সংস্থা চলতি বছরে আর্থিক দিক থেকে বেশ ডামাডোলের মধ্যে দিয়ে যাচ্ছে। এবার সেই আর্থিক সংকটেই কিছুটা বাড়তি অক্সিজেন যোগ করতে মেটা তার জনপ্রিয় সোশ্যাল মিডিয়া নেটওয়ার্কিং সাইটগুলির জন্য কিছু ‘পেইড’ ফিচার্স নিয়ে আসতে চলেছে।

36 1

সহজ ভাষায় হোয়াটসঅ্যাপ, ফেসবুক এবং ইনস্টাগ্রামের কিছু বিশেষ বৈশিষ্ট্য ব্যবহারকারীদের কাছে তুলে দিতে টাকা চার্জ করবে মেটা। মেটা এই মর্মে তার কর্মচারীদের কাছে একটি ইন্টার্নাল মেমোও পাঠিয়ে দিয়েছে। সেখান থেক মনে করা হচ্ছে, ফিচারগুলি নিয়ে ইতিমধ্যে কাজও শুরু করে দিয়েছে মেটা। অপর দিকে মেটার হেড অফ অ্যাডস অ্যান্ড বিজনেস প্রোডাক্ট জন হেগেম্যান এক সাক্ষাৎকারে বলেছেন ,

35 1

কোম্পানি আসন্ন পেইড ফিচারগুলির মাধ্যমে ইউটিউব বা অন্যান্য ওটিটি প্ল্যাটফর্মগুলির মত ইউজারদের বিজ্ঞাপন বন্ধ করার কোনো অপশন দেবেনা। কারণ মেটা তার বিজ্ঞাপন ব্যবসা বৃদ্ধিতে কাজে লাগাবে। উল্লেখ্য, সোশ্যাল মিডিয়া প্ল্যাটফর্মগুলির এহেন সাবস্ক্রিপশন মডেল প্রবর্তন করার বিষয়টি নতুন নয়।

34 2

এবার ফেসবুক, ইনস্টা ও হোয়াটসঅ্যাপ ব্যবহারে লাগতে পারে টাকা? কি বলছে মেটা

এর আগে স্ন্যাপচ্যাট এবং টুইটার ‘স্ন্যাপচ্যাট+’ বা ‘টুইটার ব্লু-র মত পেইড পরিষেবা চালু করেছে। যেখানে ব্যবহারকারীরা এর জন্য টাকার বিনিময়ে বিশেষ বৈশিষ্ট্যগুলিতে অ্যাক্সেস পান। ফলে সেই পথে হেঁটে মেটা যদি সেই রকম কিছু করে তাহলে অবাক হবার কিছু নেই।