মারণ করোনা ভাইরাসকে নকআউট করলেন সোনাজয়ী বক্সার ডিংকো সিং।

মারণ করোনা ভাইরাসকে নকআউট করলেন সোনাজয়ী  বক্সার ডিংকো সিং।

নজরবন্দি ব্যুরো: বক্সিং রিংয়ে তাঁর পাঞ্চে ধরাশায়ী হয়েছেন অনেক তাবড় বক্সার। এবার দীর্ঘ একমাসেরও বেশি সময় লড়াই করে মারণ করোনা ভাইরাসকেও নকআউট করলেন এশিয়ান গেমসে সোনাজয়ী মণিপুরী বক্সার ডিংকো সিং। দীর্ঘদিন ধরে লিভার ক্যানসারের সঙ্গে লড়াই করে যাচ্ছেন তিনি। তার মধ্যেই গত মে মাসের শেষদিকে শরীরে থাবা বসায় মারণ COVID-19।

ক্যানসারের সঙ্গে লড়াই চললেও জীবনযুদ্ধে করোনাকে হারিয়ে দিলেন ডিংকো।দীর্ঘ এক মাস পর তাঁর করোনা রিপোর্ট নেগেটিভ এসেছে। প্রাক্তন বক্সারের করোনা যুদ্ধে জয়ের খবর শুনে ভাল লাগছে দিল্লি থেকে ফেরার পর করোনা আক্রান্ত এশিয়ান গেমসে সোনাজয়ী বক্সিং আইকন ডিংকো সিংয়ের রিপোর্ট নেগেটিভ এসেছে। RIMS-এর ডাক্তার ও স্বাস্থ্যকর্মীদের অনেক ধন্যবাদ, যাঁরা ওঁর খেয়াল রেখেছিলেন।ডিংকো জানিয়েছেন, হাসপাতালে থাকার সময় পাঁচবার আমার রিপোর্ট পজিটিভ আসে।

খুবই বেদনাদায়ক অভিজ্ঞাতা হয়েছে। অনেককে দেখলাম আমার পরে ভরতি হয়ে আগে সুস্থ হয়ে বাড়ি চলে গিয়েছে। কোনও কারণে আমার একটু বেশি সময় লাগল। ডাক্তার ও নার্সদের ধন্যবাদ।করোনায় আক্রান্ত এশিয়ান গেমসে সোনাজয়ী ভারতীয় বক্সার, পাশে দাঁড়ালেন ক্রীড়ামন্ত্রী।ডিংকো সিংকে হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হচ্ছে।

১৯৯৮ সালে ব্যাংককে হওয়া এশিয়ান গেমসে মাত্র ১৯ বছর বয়সে সোনা জিতেছিলেন মণিপুরের বাসিন্দা ডিংকো সিং। তিনিই প্রথম এশিয়ান গেমসের বক্সিং বিভাগে ভারতকে সোনা এনে দেন। তাঁর এই রেকর্ড এখনও পর্যন্ত কেউ ভাঙতে পারেননি। এরপর ২০১৩ সালে তিনি পদ্মশ্রী পান। তাঁর ঝুলিতে অর্জুন পুরস্কারও রয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

x