আসন্ন কালী-জগদ্ধাত্রী-ছট পুজো নিয়ে ফের জনস্বার্থ মামলা হাইকোর্টে!

আসন্ন কালী-জগদ্ধাত্রী-ছট পুজো নিয়ে ফের জনস্বার্থ মামলা হাইকোর্টে!

নজরবন্দি ব্যুরোঃ আসন্ন কালী-জগদ্ধাত্রী-ছট পুজো নিয়ে ফের জনস্বার্থ মামলা হাইকোর্টে! বাঙালির শ্রেষ্ঠ উৎসব দুর্গাপূজা। কিন্তু এই বছরের দুর্গা পুজো অন্যান্য বছরের তুলনায় একেবারেই আলাদা ছিল। ষষ্ঠীর দিন থেকে মণ্ডপে ভিড় না থাকলেও নবমী থেকে বিভিন্ন মণ্ডপে ভিড় দেখা গিয়েছে । দুর্গা পূজোর মতই কালীপুজো, জগদ্ধাত্রী পুজো এবং ছট পুজোতেও মণ্ডপগুলোকে নো এন্ট্রি জোন করার দাবিতে হাইকোর্টে জনস্বার্থ মামলা দায়ের করলেন অজয় কুমার দে।

আরও পড়ুনঃ করোনাভাইরাসের নতুন রেকর্ড বিশ্বে। ফের লকডাউন ব্রাজিল, ফ্রান্স, জার্মানি-তে!

আসন্ন কালী-জগদ্ধাত্রী-ছট পুজো নিয়ে ফের জনস্বার্থ মামলা হাইকোর্টে! অজয় কুমার দে-ই বারোয়ারি দুর্গাপুজো বন্ধ করার জন্য হাইকোর্টে জনস্বার্থ মামলা দায়ের করেছিলেন। কলকাতার পাশাপাশি বিভিন্ন জেলা শহর ও শহরতলিতেও কালীপুজো উপলক্ষ্যে ভিড় হয়। উত্তর ২৪ পরগনার বারাসত, নৈহাটিতে কালীপুজো খুবই জনপ্রিয়। আশপাশের জেলা থেকেও দর্শনার্থীদের ঢল নামে ওই এলাকার মণ্ডপগুলিতে। সেই সব কিছুই আবারও ভাবাচ্ছে প্রশাসনকে।

পাশাপাশি হুগলী চন্দননগরের জগদ্ধাত্রী পুজো দেখতে ভিড় জমান লাখো দর্শনার্থী। ব্যাপক ভিড় হয় হাবড়া অশোক নগরের জগদ্ধাত্রি পুজোর মণ্ডপেও। সেই ভিড়ে করোনাভাইরাস ব্যাপক ভাবে ছড়িয়ে পড়তে পারে এই আশঙ্কায় ফের হাইকোর্টের হস্তক্ষেপ দাবী করেছেন দুর্গাপুজর সময় মামলাকারী অজয় কুমার দে।

তাহলে জগদ্ধাত্রী বা কালীপুজোর ভিড় ঠেকাতেও কী হাইকোর্টকে হস্তক্ষেপ করতে হবে? সেই নিয়েও উঠছে প্রশ্ন। এর মধ্যেই দায়ের হল জনস্বার্থ মামলা। করোনা আবহে দুর্গাপুজোর মতোই কালী পুজো মণ্ডপ গুলিতে নো এন্ট্রি জোন করা হবে কিনা তা নিয়ে প্রশ্ন উঠেছিল। দুর্গাপূজাতে প্রতিটি মণ্ডপে দর্শনার্থীদের ঢোকার উপর নিষেধাজ্ঞা জারি করেছিল হাইকোর্ট। সেই মতো ব্যবস্থা নিয়েছিলো পুজো কমিটি গুলি।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

x