TMC in All Party Meeting: ১০টি ইস্যুতে হবে লড়াই, সর্বদলীয় বৈঠকে বার্তা তৃণমূলের

১০টি ইস্যুতে হবে লড়াই, সর্বদলীয় বৈঠকে বার্তা তৃণমূলের
১০টি ইস্যুতে হবে লড়াই, সর্বদলীয় বৈঠকে বার্তা তৃণমূলের

নজরবন্দি ব্যুরোঃ সংসদের শীতকালীন অধিবেশন শুরু হচ্ছে সোমবার থেকেই। ঠিক তার আগে সর্বদলীয় বৈঠকের ডাক দিয়েছে ক্ষমতাশালী দল বিজেপি। লক্ষ্য, অধিবেশন সুষ্ঠভাবে পরিচালন করা। সংসদ কক্ষের মূলত দশটি বিষয় নিয়ে আলোচনা করতে চায় তৃণমূল।  

আরও পড়ুনঃ মেয়র হবেন? সম্ভাবনা আছে… কলকাতার প্রতি প্রেম বোঝাতে মরিয়া বাবুল!

কেন্দ্রীয় সংসদীয় বিষয়ক মন্ত্রী প্রহ্লাদ যোশী এ দিন সর্বদলীয় বৈঠকের আহ্বান জানিয়েছিলেন। বৈঠকে কংগ্রেস, শিবসেনা, আম আদমি পার্টি, তৃণমূল কংগ্রেস সহ ৩১ টি রাজনৈতিক দলেরত ৪২ জন প্রতিনিধি উপস্থিত ছিলেন। বৈঠকে তৃণমূলের সাংসদ সুদীপ বন্দ্যোপাধ্যায় ও ডেরেক ও’ব্রায়েন ১০ টি বিষয়ে অধিবেশন চলাকালীন আলোচনার দাবি করেন।

তৃনমূলের তরফ থেকে যে ১০টি বিষয়ে আলোচনা হয়েছে, তা হল –
১. বেকারত্ব
২. নিত্যপ্রয়োজনীয়/জ্বালানির মূল্য বৃদ্ধি
৩. আইনে MSP অন্তর্ভুক্ত করুন
৪. ফেডারেল কাঠামো দুর্বল হচ্ছে
৫. PSU-এর বিনিয়োগ বন্ধ করতে হবে
৬. বিএসএফের এখতিয়ার সম্প্রসারণ
৭. পেগাসাস স্নুপগেট
৮. কোভিড পরিস্থিতি
৯. মহিলা সংরক্ষণ বিল আনুন
১০. বিল বুলডোজ করবেন না (বিল পরীক্ষা করুন) ২০১৪ সাল থেকে খারাপ রেকর্ড

এদিনের বৈঠকে বিরোধী দলগুলির একাধিক শীর্ষ নেতা উপস্থিত ছিলেন। কংগ্রেসের তরফে উপস্থিত ছিলেন রাজ্যসভার বিরোধী দলনেতা মল্লিকার্জুন খাড়গে, সাংসদ অধীর রঞ্জন চৌধুরী ও আনন্দ শর্মা। তৃণমূলের তরফে হাজির ছিলেন সুদীপ বন্দ্যোপাধ্যায় ও ডেরেক ও’ব্রায়েন। ডিএমকের তরফে উপস্থিত ছিলেন টিআর বালু ও টি শিবা। এনসিপির তরফে উপস্থিত ছিলেন প্রবীণ নেতা শরদ পাওয়ার।

মোট ২৫টি খসড়া বিল লোকসভা ও রাজ্যসভায় পেশ করার পরিকল্পনা রয়েছে কেন্দ্রের। বাদল অধিবেশনের মতোই এবারের অধিবেশনও উত্তাল হতে পারে বলে মনে করা হচ্ছে। সোমবার, শীতকালীন অধিবেশনের শুরুতেই কেন্দ্রীয় কৃষি মন্ত্রী নরেন্দ্র সিং তোমার কৃষি আইন প্রত্যাহার বিল পেশ করবেন। বিরোধী দলগুলিও এই বিলকে সমর্থন জানাবেন। তবে এমএসপি, শহীদ কৃষকদের পরিবারকে ক্ষতিপূরণ দেওয়ার কথাও তুলে ধরবেন তাঁরা।

বিজেপির তরফে আগে থেকেই হুইপ জারি করে সমস্ত সাংসদদের উপস্থিত থাকার কথা বলে হয়েছে। তিন কৃষি আইন প্রত্যাহারের ঘোষণার পরেই ট্রাক্টর মিছিল বাতিল করেছে সংযুক্ত কিষাণ মোর্চা।

সেইসঙ্গে পুরভোটের আগে ত্রিপুরায় একাধিক হিংসার ছবিও সংসদে তুলে ধরতে চায় তৃণমূল। আলোচনায় উঠে আসতে পারে বিএসএফের এক্তিয়ার বৃদ্ধির প্রসঙ্গও। সেইসঙ্গে বাদল অধিবেশনের মতো শীতকালীন অধিবেশনে পেগাসাস নিয়ে ফের সংসদে সরব হতে চলেছে তৃণমূল।

১০টি ইস্যুতে হবে লড়াই, সর্বদলীয় বৈঠকে বার্তা তৃণমূলের

১০টি ইস্যুতে হবে লড়াই, সর্বদলীয় বৈঠকে বার্তা তৃণমূলের
১০টি ইস্যুতে হবে লড়াই, সর্বদলীয় বৈঠকে বার্তা তৃণমূলের

উল্লেখ্য, সংসদের শীতকালীন অধিবেশন কৃষি আইন এবং পেগাসাস ইস্যুতে সরব হয়েছিল তৃণমূল সাংসদরা। এমনকি ওয়েলে নেমে বিক্ষোভ দেখাতে শুরু করেন তাঁরা। যার জেরে দীর্ঘ সময় ধরে স্থগিত থাকে সংসদের কর্মসূচী। বিরোধীদের এই কার্যকলাপে সরব হয়েছিলেন স্বয়ং প্রধানমন্ত্রী। আগামী অধিবেশনে সেই ঘটনা পুনরাবৃত্তি যাতে না হয়ে সেটাই চাইছেন না শাসক শিবির।