Tripura: পুলিশকে দলদাস বানিয়ে রেখেছে বিজেপি, অভিযোগ অভিষেকের

Tripura: পুলিশকে দলদাস বানিয়ে রেখেছে বিজেপি, অভিযোগ অভিষেকের
Tripura: পুলিশকে দলদাস বানিয়ে রেখেছে বিজেপি, অভিযোগ অভিষেকের

নজরবন্দি ব্যুরোঃ “থানায় গিয়ে হামলা করছে বিজেপি। হাসপাতালে দুয়ারে গুণ্ডা পাঠিয়েছেন। পুলিশ টেবিলের তলায় লুকোচ্ছে। তাঁদের দলদাস করে রেখেছে বিজেপি” । ত্রিপুরায় সাংবাদিক বৈঠক করে সরাসরি বিপ্লব দেবের সরকারের বিরুদ্ধে তোপ দাগলেন তৃণমূলের সর্বভারতীয় সাধারণ সম্পাদক অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়। তাঁর আক্রমণ পুলিশকে দলদাস বানিয়ে রেখেছে বিজেপি। 

আরও পড়ুনঃ ধর্নার সুফল, তৃণমূল সাংসদদের সঙ্গে সাক্ষাতে রাজি অমিত শাহ

তিনি আরও বলেন, তৃণমূলে বিজেপি ভয় পেয়েছে। তাই বারবার তৃণমূলের নেতা কর্মীদের ওপর হামলা চালানো হচ্ছে। এমনকি একাধিক নেতাদের ওপর হামলা চালানো হয়েছে। সুবল ভৌমিক, সুস্মিতা দেব এমনকি ব্রাত্য বসুর ওপর হামলা করা হয়েছে। সায়নী ঘোষকে গ্রেফতারের প্রসঙ্গে অভিষেকের মন্তব্য, খেলা হবে স্লোগান দেওয়ার জন্য সায়নী ঘোষকে গ্রেফতার হতে হল? তাহলে তো বাংলায় এসে অমিত শাহ, নরেন্দ্র মোদিরা স্লোগান দিয়েছেন। তাহলে তাঁদেরকে কেন গ্রেফতার করা কেন হল না?

আইনশৃঙ্খলার প্রশ্ন তুলে অভিষেকের অভিযোগ, ত্রিপুরায় দিনের আলোয় বের হওয়া মুশকিল। এখানে নিজের মত প্রকাশ করা যায় না। আইন শৃঙ্খলা তলানিতে ঠেকেছে। তাই পরিবর্তন করতেই আমরা এখানে এসেছি। পরিবর্তনের পরেই আমরা রাজ্য ছাড়ব। সেইসঙ্গে অভিষেকের প্রশ্ন, পশ্চিমবঙ্গের ঘটনায় জাতীয় মানবধিকার কমিশন পদক্ষেপ নিলেও ত্রিপুরায় কেন চুপ মানবধিকার কমিশন? ত্রিপুরায় যে সমস্ত ঘটনা ঘটেছে তার একাধিক ভিডিও ফুটেজ রয়েছে। তিনি আশা করছেন সুবিচার শীঘ্রই মিলবে।

আর মাত্র কয়েকদিন পরেই ত্রিপুরার নির্বাচন। শেষ মুহুর্তের প্রচারে গিয়ে ত্রিপুরার জনগণের উদ্দেশ্যে অভিষেকের বার্তা, বিজেপিকে হারানোর ক্ষমতা সিপি(আই)এম রাখে না। কংগ্রেসেরও বিজেপিকে হারানোর ক্ষমতা নেই। একমাত্র ত্রিপুরায় বিজেপিকে পরাস্ত করতে পারে তৃণমূল। তাই ত্রিপুরার মানুষকে বিজেপি জিন্দাবাদ বলে ভোটটি তৃণমূলে দেওয়ার পরামর্শ দিয়েছেন তিনি।

পুলিশকে দলদাস বানিয়ে রেখেছে বিজেপি, ত্রিপুরায় প্রশাসনকে আক্রমণ অভিষেকের

পুলিশকে দলদাস বানিয়ে রেখেছে বিজেপি, ত্রিপুরায় প্রশাসনকে আক্রমণ অভিষেকের
পুলিশকে দলদাস বানিয়ে রেখেছে বিজেপি, ত্রিপুরায় প্রশাসনকে আক্রমণ অভিষেকের

ত্রিপুরাকে রক্ষা করতে সকল বিরোধী দলগুলিকে একজোট হওয়ার বার্তা দিয়েছেন তৃণমূল সাংসদ। তার বক্তব্য, তৃণমূলের হাত শক্তিশালী করে আগামী বিধানসভা নির্বাচনে রাজ্যের ক্ষমতা থেকে বিজেপিকে সরিয়ে একটি উন্নয়নমূখী, গণতান্ত্রিক, প্রগতিশীল সরকার গঠন করতে হবে।