বাংলায় করোনা ভাইরাসের তাণ্ডব অব্যাহত!

বাংলায় করোনা ভাইরাসের তাণ্ডব অব্যাহত!

নজরবন্দি ব্যুরোঃ  মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের নির্দেশে কনটেনমেন্ট জোনে আবার শুরু হয়েছে কড়া লকডাউন, চলবে আগামী ৭ দিন। কিন্তু রাজ্যে থামার কোন লক্ষন নেই করোনা ভাইরাসের। এদিকে বাংলায় করোনা ভাইরাসের তাণ্ডব অব্যাহত। আজ রেকর্ড সৃষ্টি করে আক্রান্ত হয়েছেন ১ হাজার ১৯৮ জন, মৃত্যু হয়েছে ২৬ জনের।

এবাংলায় করোনা ভাইরাসের তাণ্ডব চলছে, রাজ্যের সব জেলা গুলির মধ্যে কলকাতার হাল সবচেয়ে খারাপ। কলকাতায় এদিন নতুন করে আক্রান্ত হয়েছেন ৩৭৪ জন, মৃত্যু হয়েছে ১৩ জনের। যা কলকাতার করোনা ইতিহাসের নত্ন রেকর্ড।

এদিনের ৩৭৪ জন কে নিয়ে কোলকাতায় মোট সংক্রামিত হয়েছেন ৮ হাজার ৭৪২ জন। এদিন কলকাতায় মৃত্যু সংখ্যা বেড়েছে ১৩ টি যা নিয়ে কলকাতায় এখন পর্যন্ত মৃত্যু হয়েছে মোট ৪৭০ জনের। অন্যদিকে কলকাতায় এখন পর্যন্ত সুস্থ হয়ে উঠেছেন ৫ হাজার ২০৫ জন এবং এই মুহুর্তে চিকিৎসাধীন রয়েছেন ৩ হাজার ৬৭ জন।

আরও পড়ুনঃ করোনায় আক্রান্ত কোয়েল মল্লিক ও তার পরিবারের সদস্যরা

অন্যদিকে উত্তর ২৪ পরগণায় এদিন জেলা জুড়ে মোট সংক্রামিত হয়েছেন রেকর্ড সংখ্যক ৩২৮ জন যা নিয়ে মোট সংখ্যাটা দাঁড়িয়েছে ৪ হাজার ৯৪৫। এই জেলায় এখন পর্যন্ত সুস্থ হয়ে উঠেছেন ২ হাজার ৭৪২ জন। এদিন উত্তর ২৪ পরগনায় মৃত্যু হয়েছে ৬ জনের যা নিয়ে জেলাজুড়ে সার্বিক ভাবে মৃত্যু হয়েছে ১৫৬ জনের। এই মুহুর্তে জেলায় চিকিৎসাধীন রয়েছেন ২ হাজার ৪৭  জন।

দক্ষিন ২৪ পরগণা জেলার ক্ষেত্রেও বেড়েই চলেছে আক্রান্তের সংখ্যা। দক্ষিন ২৪ পরগনায় এদিন আক্রান্তের সংখ্যা বেড়েছে ১০৪ জন, যা নিয়ে মত আক্রান্তের সংখ্যা ১ হাজার ৯১৮। এই জেলায় মৃত্যু হয়েছে ৩৮ জনের।

হাওড়া জেলার ক্ষেত্রে ফের ব্যাপক হারে শুরু হয়েছে সংক্রমণ, জেলায় আজ সংক্রামিত হয়েছেন ১৩০ জন যা নিয়ে মত আক্রান্তের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ৩ হাজার ৬৯৫ জন। আজ হাওড়া তে মৃত্যু হয়েছে ৪ জনের যা নিয়ে মোট মৃতের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ১২১। এই জেলায় এখন চিকিৎসাধীন রয়েছেন ১ হাজার ৪৭ জন।

কলকাতা, উত্তর ও দক্ষিন ২৪ পরগণা, হুগলী, জলপাইগুড়ি, মালদা এবং দার্জিলিং সহ সংকটজনক রাজ্যের ১০ জেলা, রাজ্যের প্রায় ১০টি জেলায় হুহু করে বাড়ছে করোনা ভাইরাসের সংক্রমণ। এদিন প্রায় সবকটি জেলায় সংক্রমণ বেড়েছে রেকর্ড হারে। বাংলায় করোনা ভাইরাসের তাণ্ডব দেখুন জেলা ভিত্তিক সার্বিক পরিসংখ্যান

করোনা ভাইরাস

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *