Trending News: বাপের বাড়ি থেকে ফিরতে রাজি নয় বউ, রেগে নিজের যৌনাঙ্গ কাটলেন স্বামী

বাপের বাড়ি থেকে ফিরতে রাজি নয় বউ, রেগে নিজের যৌনাঙ্গ কাটলেন স্বামী।
Wife refuses to return her husband home, He cuts his penis in anger

নজরবন্দি ব্যুরোঃ চাকরিসূত্রে পাঞ্জাবের মান্ডিতে থাকেন কৃষ্ণা বাসুকি নামে এক ব্যক্তি। তাঁর স্ত্রী অনিতা, তিন মেয়ে ও এক ছেলেসহ চার সন্তান থাকে বিহারে। মাস দুয়েক আগে চাকরি থেকে ছুটি নিয়ে পরিবারের সঙ্গে দেখা করতে রজনী নয়ানগরে আসেন ওই ব্যক্তি। আর এসে দেখেন তাঁর স্ত্রী বাপের বাড়ি গিয়েছে। বারবার তাঁকে বাড়ি ফেরার অনুরোধ করেছিলেন স্বামী। কিন্তু, তা না শোনায় চরম পদক্ষেপ যুবকের! কেটে নিলেন নিজের যৌনাঙ্গ!

আরও পড়ুনঃ অভিষেকের সভাতেই যোগদান করবেন হিরণ! জল্পনা বাড়ালেন মদন

চাঞ্চল্যকর এই ঘটনাটি ঘটেছে বিহারে। জানা গিয়েছে, শুক্রবার রাতে বিহারের মধ্যপুরা থানার অন্তর্গত রজনী নয়ানগর এলাকায় ঘটনাটি ঘটেছে। ওই ব্যক্তির নাম কৃষ্ণ বাসুকির বয়স ২৫। বছর কয়েক আগে কৃষ্ণর সঙ্গে গোলপাড়া পুলিশ স্টেশনের অন্তর্গত মালোধের বাসিন্দা অনীতার বিয়ে হয়। তাঁদের চার সন্তান-তিন মেয়ে এবং এক ছেলে। সূত্রের খবর, কৃষ্ণ পঞ্জাবে কাজ করেন এবং সেখানেই থাকেন। দু’মাস আগে পরিবারের সঙ্গে দেখা করার জন্য বিহারে আসেন তিনি।

বাপের বাড়ি থেকে ফিরতে রাজি নয় বউ, রেগে নিজের যৌনাঙ্গ কাটলেন স্বামী।
বাপের বাড়ি থেকে ফিরতে রাজি নয় বউ, রেগে নিজের যৌনাঙ্গ কাটলেন স্বামী।

এদিকে অনীতার বাপের বাড়ি চলে যায়। কৃষ্ণর পরিজনদের দাবি, একাধিকবার অনীতাকে বাড়ি ফিরে আসার জন্য অনুরোধ করেন কৃষ্ণ। কিন্তু, কোনওভাবেই তাতে রাজি হননি অনীতা। আর তারপরেই ঘটে এমন ঘটনা। ব়ক্তাক্ত অবস্থায় তাঁকে দেখতে পেয়ে হাসপাতালে ভর্তি করেন প্রতিবেশীরা। সূত্রের খবর, মানসিক ভাবে অসুস্থ ছিল কৃষ্ণা। বর্তমানে তিনি স্থিতিশীল বলে জানিয়েছেন হাসপাতালের চিকিৎসক।

প্রাথমিকভাবে জানা যাচ্ছে, কৃষ্ণ মানসিক সমস্যায় ভুগছিলেন। তাঁর চিকিৎসক সুকেশ কুমার বলেন, ‘আপাতত মেডিক্যাল কলেজে ভর্তি রয়েছেন কৃষ্ণ। জীবন সংকট কেটেছে। আরও কিছুদিন তাঁকে পর্যবেক্ষণে রাখতে হবে।’ কৃষ্ণর পরিবারের সদস্যদের তরফে এই বিষয়ে অতিরিক্ত কোনও তথ্য পাওয়া যায়নি। চিকিৎসকরা তাঁর মানসিক অবস্থাও খতিয়ে দেখছে।

বাপের বাড়ি থেকে ফিরতে রাজি নয় বউ, রেগে নিজের যৌনাঙ্গ কাটলেন স্বামী

বাপের বাড়ি থেকে ফিরতে রাজি নয় বউ, রেগে নিজের যৌনাঙ্গ কাটলেন স্বামী।
বাপের বাড়ি থেকে ফিরতে রাজি নয় বউ, রেগে নিজের যৌনাঙ্গ কাটলেন স্বামী।

অন্যদিকে, অনীতা স্বামীর এই পরিণতি ভেবে উঠতে পারছেন না। এখনও পর্যন্ত তাঁর কোনও প্রতিক্রিয়া পাওয়া সম্ভব হয়নি। কিছুদিন আগেই বাংলাদেশে একটি চাঞ্চল্যকর ঘটনা সামনে এসেছিল। যেখানে শারীরিক চাহিদা পূরণ করতে না পারায় স্বামীর ঘাড় মটকে খুন করার অভিযোগ উঠেছে স্ত্রীর বিরুদ্ধে। এই ঘটনাটি ঘটেছে বাংলাদেশের চর বেতকান্দি গ্রামে। অভিযুক্ত ফারজানা খাতুনকে ইতিমধ্যেই গ্রেফতার করেছে বাংলাদেশ পুলিশ। জেরায় স্বামীকে খুনের কথা স্বীকার করেছে সে, জানা গিয়েছে এমনটাই।