পুজোয় ভিড় এড়াতে গভীর রাতে ট্রেন চালানো সিদ্ধান্ত নিল রেল

পুজোয় ভিড় এড়াতে গভীর রাতে ট্রেন চালানো সিদ্ধান্ত নিল রেল

নজরবন্দি ব্যুরোঃ পুজোয় ভিড় এড়াতে গভীর রাতে ট্রেন চালানো সিদ্ধান্ত নিল রেল । ষষ্ঠীর দিন দুপুর থেকেই শহরতলির ট্রেনে ভিড়। গ্রাম ও মফঃস্বল থেকে শহরে আসছেন দর্শনার্থীরা। গত বছর কোভিডের চরম ধাক্কায় বিপর্যস্ত ছিল জনজীবন। লোকাল ট্রেন ছিল বন্ধ। এবারও পুরোপুরি স্বাভাবিক হয়নি লোকাল ট্রেন চলাচল।

আরও পড়ুনঃ স্পুটনিক লাইট রপ্তানি তে ছাড়পত্র দিল কেন্দ্র

তা সত্ত্বেও এবার জনজোয়ার আছড়ে পড়েছে শহরে। হাওড়া, শিয়ালদহমুখী ট্রেনে ভিড়। এই ভিড় দেখেই রাতের ট্রেন চালানোর সিদ্ধান্ত নিয়েছে হাওড়া ডিভিশন। হাওড়ার সিনিয়র ডিভিশন্যাল অপারেশন ম্যানেজার রোশন কুমার জানাচ্ছেন, ‘কোভিড শুরুর আগের বছর অর্থাত্ ২০১৯ সালে পুজোয় গভীর রাতে যত ট্রেন চলেছিল এবার তার থেকে বেশি ট্রেন চালানো হবে।

ওই বছর আটটি ট্রেন গভীর রাতে চলেছিল বিভিন্ন শাখায়। এবার বারোটি ট্রেন চলবে। ট্রেনের সংখ্যা এখন কম তাই ট্রেনের ‘ব্যালান্সিং’ রক্ষায় বাড়তি চারটি ট্রেন চলবে এবার সপ্তমী থেকে নবমী পর্যন্ত।’
হাওড়া থেকে রাত ১২.৪৫ বর্ধমান মেন শাখার জন্য একটি ট্রেন ছাড়বে।

সেটি ৩.১০ মিনিটে বর্ধমান পৌঁছবে। বর্ধমান থেকে হাওড়ার উদ্দেশে রাত ৯.৩০ মিনিটে ছাড়বে একটি ট্রেন। যা ১২.০৫ মিনিটে হাওড়া পৌঁছবে। হাওড়া থেকে বর্ধমান কর্ড লোকাল ছাড়বে ১.১৫ মিনিটে। বর্ধমান থেকে হাওড়ার উদ্দেশে একটি ট্রেন ছাড়বে রাত ১০.৩০-এ। রাত ১টা, ১.৫০ ও ২.৫০ মিনিটে হাওড়া থেকে ছাড়বে তিনটি ব্যান্ডেল লোকাল।

পুজোয় ভিড় এড়াতে গভীর রাতে ট্রেন চালানো সিদ্ধান্ত নিল রেল

ব্যান্ডেল থেকে হাওড়ার উদ্দেশেও ছাড়বে তিনটি ট্রেন। সেগুলি ছাড়বে রাত ১১.৩০, ১২.৩০ ও ১.৩০-এ। শেওড়াফুলির থেকে রাত ১২.৩০টার সময় তারকেশ্বরের উদ্দেশে ছাড়বে একটি ট্রেন। তারকেশ্বর থেকে হাওড়ার উদ্দেশে আরও একটি ট্রেন ছাড়বে রাত ১১.১০ মিনিটে। এদিকে শিয়ালদহের ডিআরএম এস পি সিং বলেন, ‘এখন এ নিয়ে সিদ্ধান্ত না নেওয়া হলেও প্রস্তুতি নিয়ে রাখা হয়েছে। যাতে রাতেই প্রয়োজনে শিয়ালদহ থেকে ট্রেন ছাড়তে পারে।’

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here