মায়াবতীকে ‘বর্ণবিদ্বেষী’ বলে আক্রমণের জের! এবার রাষ্ট্রসংঘের পদ খোয়ালেন রণদীপ হুডা

মায়াবতীকে 'বর্ণবিদ্বেষী' বলে আক্রমণের জের! এবার রাষ্ট্রসংঘের পদ খোয়ালেন রণদীপ হুডা
মায়াবতীকে 'বর্ণবিদ্বেষী' বলে আক্রমণের জের! এবার রাষ্ট্রসংঘের পদ খোয়ালেন রণদীপ হুডা

নজরবন্দি ব্যুরোঃ বৃহস্পতিবার থেকেই সোশ্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল Arrest Randeep Hooda হ্যাশট্যাগ। আসলে হঠাত্ইা ভাইরাল হয়েছে অভিনেতার নয় বছরের পুরনো একটি ভিডিয়ো। সেখানেই বলিউড অভিনেতাকে বর্ণবিদ্বেষী, অপমানজনক লিঙ্গ বৈষম্যমূলক, অশ্লীল ঠাট্টা করতে দেখা গিয়েছে উত্তরপ্রদেশের প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী মায়বতীকে নিয়ে।

আরও পড়ুনঃ বাঁশ দিয়ে সাগরকে পিটিয়েছিলেন সুশীল! ভাইরাল হল এবার সেই ছবি

আর তারপরেই অভিনেতার বিরুদ্ধে সরব হয়েছেন নেটনাগরিকরা। আর যার ফলে রাষ্ট্র সংঘের পরিযায়ী বন্য প্রাণীদের সংরক্ষণের জন্য প্রচারকের পদ থেকে সরানো হল।অভিনেতাকে দূতের পদ থেকে সরানোর খবর নিশ্চিত করেছেন সংশ্লিষ্ট দপ্তরের এক আধিকারিক।

সংশ্লিষ্ট আধিকারিকের কথায়, রণদীপের এমন মন্তব্য নীতিগতভাবে রাষ্ট্রসংঘ বিরুদ্ধ। বর্ণবিদ্বেষী, লিঙ্গবৈষম্যকে মোটেই সংগঠন সমর্থন করে না। পাশাপাশি তিনি এও জানান যে, ২০১২ সালের ওই ভিডিও সম্পর্কে অবগত ছিলেন না তাঁরা, তাই ২০২০ সালে তাঁকে মাইগ্রেটরি স্পেসিজ অফ ওয়াইল্ড অ্যানিমেলস-এর দূত হিসেবে নিয়োগ করা হয়েছিল।

প্রসঙ্গত, গতবছর অস্ট্রেলিয়ার পরিবেশবিদ সচা ডেঞ্চ এবং ব্রিটিশ আইএএন রেডমন্ডের সঙ্গে ওই একই পদে দূত হিসেবে নিযুক্ত হয়েছিলেন রণদীপ। ২০২৩ সাল অবধি কাজের চুক্তি ছিল।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here