বেকার শ্রমিকদের কে অর্থ প্রদানের ভাবনা সরকারের

বেকার শ্রমিকদের কে অর্থ প্রদানের ভাবনা সরকারের

নজরবন্দি ব্যুরোঃ করোনার আবহে বন্ধ হয়ে গিয়েছে একাধিক কলকারখানা, যারফলে নিমেষের মধ্যেই কর্মহারা হয়ে পড়েছে বহু মানুষ। তাই তাদের জন্য এবার নয়া পরিকল্পনা গ্রহন করল রাজ্য সরকার। পুজোর এই মরসুমে সমস্ত দুঃখকষ্ট ভুলে তারা যাতে আবারও হাসিমুখে পুজো উপভোগ করতে পারেন তাই বিশেষ ভাতার সূচনা করলেন রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী ।

আরও পড়ুনঃনজিরবিহীন প্রতারণা হবু শিক্ষকদের সাথে, এত মিথ্যা কিভাবে বলেন মাণিক? প্রশ্ন চাকরিপ্রার্থীদের

জানা গিয়েছে পুজোর ছুটির আগে প্রায় সাড়ে ২৭ হাজার কর্মহীন শ্রমিক ও তাঁদের পরিবারের মুখে হাসি ফোটানোর জন্য কিছু অর্থ মঞ্জুর করেছে রাজ্য সরকার। গত শুক্রবার সন্ধ্যায় শ্রম দফতরের আধিকারিকদের তরফ থেকে জানানো হয়, এই প্রকল্পের জন্য রাজ্য সরকারের তরফ থেকে প্রায় সাড়ে ১২ কোটি টাকা বরাদ্দ করা হয়েছে। শ্রমমন্ত্রী-সহ অন্যান্য আধিকারিকদের নির্দেশে দ্রুততার সঙ্গে শ্রমিকদের অ্যাকাউন্টে এই টাকা পাঠানোর কথা বলা হয়েছে।

সবমিলিয়ে বিভিন্ন জেলা থেকে উঠে আসা অনুযায়ী, গোটা রাজ্যের মোট ১৭৫টি বন্ধ কারখানার আবেদনকারী প্রায় সাড়ে ২৭ হাজার বেকার শ্রমিকের মাসিক দেড় হাজার টাকা ভাতা বাকি রয়েছে গত তিন মাস ধরে।পাশাপাশি মুখ্যমন্ত্রীর নির্দেশে প্রতি বছরের মতো এ বারেও উত্‍সব ভাতা হিসেবে প্রত্যেককে এক মাসের বাড়তি অর্থ দেওয়ার প্রস্তাব সামনে আসে। তাই অক্টোবরের মধ্যেই সকল আবেদনকারীর অ্যাকাউন্টে মোট ছয় হাজার টাকা করে দেওয়ার নির্দেশ এসেছে।

বেকার শ্রমিকদের কে অর্থ প্রদানের ভাবনা সরকারের, জেনেনিন সময় 

বেকার শ্রমিকদের কে অর্থ প্রদানের ভাবনা সরকারের

তবে একেবারে শেষ মুহূর্তে এই অনুমোদন আসায় পুজোর আগে কর্মহীন শ্রমিকদের কে  এই অর্থ দেওয়া  সম্ভব না হলেও পুজোর ছুটি শেষ হলেই সেই টাকা আবেদনকারীদের কাছে পৌঁছে যাবে বলে জানানো হয়েছে। ফলে দীপাবলির আগেই এই অর্থ পাবেন বেকার শ্রমিকরা।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here