দল পাঠাল “কম্পালসারি ওয়েটিং” এ, বাবার মতই বিজেপির পথে প্রদীপ পুত্র।

দল পাঠাল “কম্পালসারি ওয়েটিং” এ, বাবার মতই বিজেপির পথে প্রদীপ পুত্র।

নজরবন্দি ব্যুরোঃ দল পাঠাল “কম্পালসারি ওয়েটিং” এ, বাবার মতই বিজেপির পথে প্রদীপ পুত্র। বাবা প্রদীপ ঘোষ ছিলেন একসময় কংগ্রেসের দাপুটে নেতা। তারপর সময়ের সাথে সাথে প্রথমে তৃণমূল তারপর বিজেপিতে যোগদান করেন তিনি। তবে পুত্র সজল ঘোষ এতদিন ছিলেন শাসকদল তৃণমূলেই। তবে দলে থাকলেও ধীরে ধীরে দূরত্ব বাড়ছিল দলের। সন্তোষ মিত্র স্কোয়ারের পুজো থেকে বিভিন্ন সামাজিক কাজেই ইদানিং নিজেকে ব্যাস্ত রাখছেন সজল।

আরও পড়ুনঃ মইদুল হত্যা মামলায় ২ সপ্তাহের মধ্যে সিট’কে রিপোর্ট জমার আদেশ হাইকোর্টের।

উত্তর কলকাতায় নিজের মত জনসংযোগ তৈরি করছিলেন তিনি। দলও তাঁকে পাঠিয়েছে কম্পালসারি ওয়েটিং এ। তাই খুব শীঘ্রই বাবার পথে হেঁটে বিজেপিতে যোগদান করতে চলেছে বলে সুত্রের খবর। রাজ্য বিজেপি জানায় আগামী ২৪ ফেব্রুয়ারি রাজ্য নেতৃত্বের উপস্থিতিতেই সজল-সহ বেশ কয়েকজন তৃণমূল ছেড়ে দলে যোগ দেবেন। এব্যাপারে জিজ্ঞেস করা হলে সজল বলেন “শুধু আমি নই, আমার সঙ্গে প্রায় হাজারজন বিজেপিতে যোগ দেবেন। তৃণমূল আমাকে ‘কম্পালসারি ওয়েটিং’-এ পাঠিয়ে দিয়েছে। প্রতিদিনই লোক ঠকাচ্ছে তৃণমূল। সে কারণে বিজেপিতে যোগ দিয়ে রাজ্যে গণতন্ত্র প্রতিষ্ঠা করার কাজ করতে চাই।”

উত্তর কলকাতায় সিটি কলেজে পড়াশোনা করার সময়ই ছাত্র রাজনীতিতে যোগ দেন সজল। তার পর ছাত্র পরিষদের জেলা সভাপতি হন। পরবর্তীকালে বাবার সঙ্গেই তিনি কংগ্রেস ছেড়ে তৃণমূলে যোগ দেন। কলকাতা পুরসভার ৩৬ নম্বর ওয়ার্ডে উপনির্বাচনে কাউন্সিলর পদে লড়েছিলেন। দলের সঙ্গে দূরত্ব তৈরি হওয়ায়, আবার কংগ্রেসে ফিরে গিয়েছিলেন বাবার সঙ্গে। তার পর ফের ২০১২ সালে তৃণমূলে ফিরে আসেন সজল। যদিও প্রদীপ ঘোষ তৃণমূল ছেড়ে বিজেপিতে যোগ দেন। কিন্তু শারীরিক কারণে রাজনীতিতে খুব একটা সক্রিয় ছিলেন না। ভোটের ঠিক আগে সজল যোগ দিলে উত্তর কলকাতার একাংশে বিজেপির জমি কিছুটা শক্ত হবে বলে মনে করছেন নেতৃত্ব। সজলের কথায়, “আমার টিকিট কনফার্ম হবে কি না জানি না, তবে লোকঠকানো, মিথ্যাচার থেকে রেহাই দিতে বাংলার মানুষের পাশে থাকতে চাই।”

দল পাঠাল “কম্পালসারি ওয়েটিং” এ, বাবার মতই বিজেপির পথে প্রদীপ পুত্র। ২৪ তারিখ আমহার্স্ট স্ট্রিট থানার সামনে হৃষীকেশ পার্ক থেকে সন্তোষ মিত্র স্কোয়ার পর্যন্ত বিশাল মিছিলের আয়োজনে রয়েছেন সজল। আসতে পারেন তৃণমূল থেকে ছেড়ে যাওয়া শুভেন্দু অধিকারী, রাজীব বন্দ্যোপাধ্যায়-সহ বিজেপি নেতারা। সুত্রের খবর ওই মিছিলেই পতাকা হাতে বিজেপিতে আনুষ্ঠানিক ভাবে যোগ দেবেন উত্তর কলকাতার নেতা সজল।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

x