CBI জিজ্ঞাসাবাদ শুরু, রুজিরার কাছে মমতা! ব্যাপক চাঞ্চল্য রাজ্য রাজনীতিতে।

CBI জিজ্ঞাসাবাদ শুরু, রুজিরার কাছে মমতা! ব্যাপক চাঞ্চল্য রাজ্য রাজনীতিতে।

নজরবন্দি ব্যুরোঃ CBI জিজ্ঞাসাবাদ শুরুর আগে অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়ের স্ত্রী রুজিরার সাথে দেখা করে গেলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দোপাধ্যায়! সিবিআইএর টিম অভিষেকের বাড়িতে আসার কিছুক্ষন আগেই শান্তিনিকেতন বিল্ডিং-এ আসেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। পড়ায় ১০ মিনিট ছিলেন তিনি। কথা বলেন রুজিরার সাথে। এরপরেই বেরিয়ে যান তিনি। আর মমতা বন্দোপাধ্যায় বেরিয়ে যাওয়ার ৩ মিনিট পর ঢোকে সিবিআই আধিকারিকরা। চাঞ্চল্য রাজ্য রাজনীতিতে।

আরও পড়ুনঃ শীত বিদায় নিচ্ছে, দিনের সর্বোচ্চ তাপমাত্রা ৩০ ডিগ্রি ছাড়াল !

কয়লাকাণ্ডে অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়ের স্ত্রীকে জিজ্ঞাসাবাদ করতে অভিষেকের বাড়িতে পৌঁছেছেন কেন্দ্রিয় তদন্তকারী সংস্থা। কেন্দ্রীয় সংস্থার দাবি, কয়লা কাণ্ডে অভিযুক্তরা একাধিকবার টাকা পাঠিয়েছেন অভিষেক বন্দোপাধ্যায়ের স্ত্রী রুজিরা বন্দ্যোপাধ্যায় কে। গতকাল সেই নোটিশের উত্তর দেন রুজিরা। আজ বাড়িতে এসে কথা বলার জন্যে CBI কে অনুরোধ করেন তিনি। সেই মত এদিন রুজিরার কাছে পৌঁছেছে CBI এর আট সদস্যের টিম।

রুজিরা বন্দ্যোপাধ্যায়কে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য সিবিআইয়ের ৮ সদস্যের তদন্তকারী দলের নেতৃত্বে থাকছেন এসপি পদমর্যাদার অফিসার বিশ্বজিৎ দাস। থাকছেন অ্যাডিশনাল এসপি পদমর্যাদার তদন্তকারী অফিসার উমেশ কুমার। এছাড়াও দলে থাকছেন ডিএসপি পদমর্যাদার দুই মহিলা অফিসার।

সিবিআই সূত্রে খবর, রুজিরা কে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য ৮ পাতার প্রশ্ন তালিকা তৈরি করা হয়েছে। সূত্রের দাবি, জানতে চাওয়া হবে রুজিরা বন্দ্যোপাধ্যায়ের নাগরিকত্ব নিয়ে। তাঁর কটি পাসপোর্ট রয়েছে, অভিষেক-পত্নী কোনও রেজিস্টার্ড সংস্থার সঙ্গে যুক্ত কিনা, কোনও সংস্থার পদাধিকারী কিনা তাও জানতে চাওয়া হবে। 

অন্যদিকে সিবিআই হানা প্রসঙ্গে ২ দিন আগেই ট্যুইট করেন অভিষেক। সেখানে তিনি লেখেন, “দুপুর ২টোর সময় সিবিআই নোটিশ দিয়েছে আমার স্ত্রীর নামে। দেশের আইন কানুনের প্রতি আমার পূর্ণ আস্থা রয়েছে।” এরপরেই আক্রমণে গিয়েছেন অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়। নাম না করে বিজেপি তথা কেন্দ্রের প্রতি তাঁর অভিযোগ, “তবে, যদি তারা মনে করে যে তারা আমাদের ভয় দেখানোর জন্য এই সংস্থাগুলিকে চালনা করবে। তাহলে তাঁরা ভুল করছে। আমরা কাপুরুষ নই।”

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

x