ISL Derby : ডার্বির উন্মাদনায় ফুটছে শহর, ইস্টবেঙ্গল নিয়ে আশাবাদী নন বাইচুং

নজরবন্দি ব্যুরোঃ মাত্র দিন দুয়েকের অপেক্ষা এরপরেই রয়েছে বাঙালির ডার্বি উৎসব। যেখানে মুখোমুখি হবে ইস্টবেঙ্গল ও এটিকে মোহনবাগান। যা নিয়েই ইতিমধ্যেই উত্তেজনার চরমে শহরবাসী। একদিকে প্রথম ম্যাচে কেরালা কে উড়িয়ে আত্মবিশ্বাসের তুঙ্গে রয়েছে লোপেজ হাবাসের এটিকে মোহনবাগান। আবার অন্যদিকে প্রথম ম্যাচে জামশেদপুর এফসির বিরুদ্ধে ১ পয়েণ্ট সংগ্রহ করে ডার্বির প্রস্তুতি নিতে শুরু করেছে ইস্টবেঙ্গল। তবে এবারের দল নিয়ে যেন খুব একটা খুশি নন বাইচুং ভুটিয়া।

আরও পড়ুনঃ মাদককাণ্ডে অভিযুক্ত রাকেশ সিংয়ের জামিন, আপাতত স্বস্তিতে বিজেপি নেতা

একটা সময় লাল-হলুদ জার্সি গাঁয়ে গোটা ময়দান মাত করে এসেছেন এই পাহাড়ি বিছে। একাধিকবার বাগান শিবিরের দুর্ভেদ্য রক্ষন কে ভেদ করে গোলের বন্যা বইয়ে দিয়ে এসেছেন তিনি। তবে সেই দলের সঙ্গে মানালো দিয়াজের এই প্রথম একাদশে যেন আকাশ-পাতাল ফারাক খুঁজে পাচ্ছেন বাইচুং। এককথায় গতবারের বিদেশি ফুটবলারদের থেকে এবারের বিদেশি ফুটবলারদের নিয়ে যথেষ্ট হতাশ দেশের এই প্রাক্তন ফুটবল তারকা।

সম্প্রতি ডার্বির প্রসঙ্গ নিয়ে একটি সংবাদ মাধ্যমের মুখোমুখি হয়ে দলের খেলোয়াড়দের অবস্থান স্পষ্ট করেন বাইচুং। তবে এখনই কোনো সিদ্ধান্তে পৌঁছতে নারাজ এই পাহাড়ি বিছে। তিনি বলেন, “দেখুন, সবে একটা ম্যাচ খেলেছে। তবে প্রথম ম্যাচের নিরিখে বলতে পারি,ইস্টবেঙ্গলের বিদেশি ফুটবলারদের আমার খুব একটা ভাল লাগেনি। মনে হয়েছে এবারের তুলনায় গত বছরের বিদেশি ফুটবলাররা অনেক বেশি কার্যকরী ভূমিকা গ্রহন করেছিল।”

তবে গতবারের তুলনায় এবারে প্রথম ম্যাচের শুরুতে যে চনমনে লাল-হলুদ কে দেখা গিয়েছে সেইপ্রসঙ্গে বাইচুং বলেন,” গতবার যে ভারতীয় ফুটবলাররা খেলেছিল, প্রথম ম্যাচ দেখে এবারের ভারতীয় ফুটবলারদের তার থেকে ভাল লাগল। আর চারজন বিদেশির পাশাপাশি সাতজন ভারতীয়। তাই গতবারের থেকে এবারের এসসি ইস্টবেঙ্গলকে ভাল দল মনে হচ্ছে। পাশাপাশি প্রথম ম্যাচ থেকেই গোলে অরিন্দমের মতো অভিজ্ঞ গেলকিপার। তাই রবি ফাউলারের থেকে কিছুটা হলেও সুবিধাজনক পরিস্থিতি তে রয়েছে মানালো দিয়াজের দল।”

ডার্বির উন্মাদনায় ফুটছে শহর, লাল-হলুদের বিদেশিদের নিয়ে আশাবাদী নন বাইচুং

ডার্বির উন্মাদনায় ফুটছে শহর, ইস্টবেঙ্গল নিয়ে আশাবাদী নন বাইচুং
ডার্বির উন্মাদনায় ফুটছে শহর, ইস্টবেঙ্গল নিয়ে আশাবাদী নন বাইচুং

অপরদিকে নিজেদের প্রায় আগের দলকেই ধরে রেখেছে লোপেজ হাবাসের এটিকে মোহনবাগান। সেইসঙ্গে এবার যুক্ত হয়েছে হুগো বুমোসের মত শক্তিশালী মিডফিল্ডার। তাই লাল-হলুদের থেকে কিছুটা হলেও বাড়তি অক্সিজেন নিয়ে আগামী ২৭ তারিখ মাঠে নামবে স্পানিশ বসের এটিকে মোহনবাগান। তবে শেষ হাসি কারা হাসে এখন সেদিকেই নজর সকলের। তবে প্রত্যেক বছরই আইএসএল জয়ের ক্ষেত্রে বিদেশিদের যে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা থাকে তা বলাই চলে।

ডার্বির উন্মাদনায় ফুটছে শহর, ইস্টবেঙ্গল নিয়ে আশাবাদী নন বাইচুং
ডার্বির উন্মাদনায় ফুটছে শহর, ইস্টবেঙ্গল নিয়ে আশাবাদী নন বাইচুং