আমরা মানুষ কে বোঝাতে পারিনি, তাই হেরে গেছি! সিপিএমের সুর দিলীপের গলায়।

আমরা মানুষ কে বোঝাতে পারিনি, তাই হেরে গেছি! সিপিএমের সুর দিলীপের গলায়।
আমরা মানুষ কে বোঝাতে পারিনি, তাই হেরে গেছি! সিপিএমের সুর দিলীপের গলায়।

নজরবন্দি ব্যুরোঃ ২০০৯ সালে লোকসভা নির্বাচনে ভরাডুবি, তারপর ২০১১, ২০১৬ শেষে ২০২১। প্রায় প্রতিটি নির্বাচন শেষে সিপিএমের নেতাদের বলতে শোনা গেছে, আমরা মানুষ কে বোঝাতে পারিনি! এবার সেই একই বক্তব্য উঠে এল বিজেপির প্রাক্তন রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষের গলায়। শুক্রবার ইজেডসিসিতে নতুন রাজ্য সভাপতি সুকান্ত মজুমদার কে সংবর্ধনা দেওয়ার অনুষ্ঠানে উপস্থিত হয়ে একথা বলেন দিলীপ।

আরও পড়ুনঃ ম্যান মেড বন্যা, মমতা কে একযোগে আক্রমণ সুজন-অধীর-সুকান্তর।

তাঁর কথায়, “তৃণমূল ক্ষমতায় এসেছে, তার দায় আমাদের। সিপিএমের মতো আমরা মানুষকে বোঝাতে পারিনি”। এদিন দিলীপ বলেন, “রাজ্যের মানুষ ভেবেছে বিজেপি ১৫০ আসন পাবে না। ওঁরা ১০০ আসন পাওয়ার মতো দল। তাই আমাদের সরকারে আনেনি। বিরোধী আসনে বসিয়েছে। বিরোধী আসনে থেকেও মানুষের কাজ করা যায়। আমাদের এখন সেটাই করতে হবে।”

তবে আত্মবিশ্বাসী দিলীপ ঘোষ ভবিষ্যতের কথাও বলেন, তাঁর কথায়, “আমরাই(পড়ুন বিজেপি) তৃণমূল সরকারকে রাস্তায় নিয়ে যেতে পারি। মানুষ যেদিন যোগ্য মনে করবে, আমাদের সরকার আসবে। আমাদের মুখ্যমন্ত্রী হবে।” দলত্যাগীদের উদ্দেশ্যে বার্তা দিয়ে বিজেপি সর্বভারতীয় সহ সভাপতি বলেন, “ক্ষমতার লোভে যাঁরা এখান থেকে ওখানে গেছেন, আজ হোক, কাল হোক, তাঁদের রিজাইন করতে হবে।”

এদিনের অনুষ্ঠানে বিরোধী দলনেতা শুভেন্দু অধিকারীও বক্তব্য রাখেন। তিনিও বিধানসভা নির্বাচনে বিজেপির পরাজয় নিয়ে নিজের মত করে কারন ব্যাখ্যা করেন। শুভেন্দুর কথায়, রাজ্যে ক্ষমতায় আসতে হলে বুথস্তরের সংগঠন নিয়ে কাজ করতে হবে। বুথ স্তরে সংগঠন না থাকার জন্যেই পরাজিত হয়েছে বিজেপি।

আমরা মানুষ কে বোঝাতে পারিনি, তাই হেরে গেছি! দিলীপ ঘোষ

আমরা মানুষ কে বোঝাতে পারিনি, তাই হেরে গেছি!
আমরা মানুষ কে বোঝাতে পারিনি, তাই হেরে গেছি!

এদিন শুভেন্দু অধিকারীও দলত্যাগীদের উদ্দেশ্যে কড়া বার্তা দেন। অনেকে দল ছেড়েছেন। তাঁদের সদস্যপদ খারিজের দাবিতে আদালতে মামলা চলছে। ৭ অক্টোবর দলত্যাগীদের ভাগ্য নির্ধারণ হয়ে যাবে। মুকুল রায়কে দিয়ে এই কাজ শুরু হবে। দলত্যাগীদের বিরুদ্ধে সিপিএম, কংগ্রেস যা পারেনি, বিজেপি তা করে দেখাবে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here