মুখ্যমন্ত্রী পদে শপথ নিলেন ইয়েদুরাপ্পা। তবুও প্রশ্ন, টিকবে তো এই সরকার?




জনমত

পঞ্চায়েত ভোটে তৃণমূলের জয়জয়কার। কারন?

  • ভোট লুঠ (77%, 2,262 Votes)
  • উন্নয়নের পক্ষে ভোট (17%, 486 Votes)
  • দুর্বল বিরোধী (7%, 195 Votes)

Total Voters: 2,943

Loading ... Loading ...

নজরবন্দি ব্যুরোঃ সারারাত ধরে চললো আদালতে শুনানি। তারপর কাক ভোরে আদালতের রায়। অবশেষে কর্নাটক ভোটযুদ্ধ নাটকের যবনিকা টেনে মুখ্যমন্ত্রী পদে শপথ নিলেন বিজেপির ইয়েদুরাপ্পা।

২২৪ আসনের কর্নাটক বিধানসভার ফল প্রকাশের দিন থেকেই রং বদলের দীর্ঘ টানাপোড়েন চলেছে। ম্যাজিক ফিগার থেকে মাত্র ন’পা আগে থেমে যায় বিজেপি’র বিজয় রথ। অন্যদিকে কংগ্রেস এবং জনতা দল সেকুলারের মোট আসন সংখ্যা দাঁড়ায় ১১৬। কংগ্রেস জানিয়ে দেয় নিঃশর্ত সমর্থন করবে জেডিএসকে।

বিজেপি এবং দেবগৌড়া দু’পক্ষই রাজ্যপালের কাছে সরকার গড়ার দাবি জানায়। কিন্তু রাজ্যপাল তথা গুজরাটের মোদী মন্ত্রিসভার প্রাক্তন মন্ত্রী বাজুভাই বালা বৃহত্তম দল হিসেবে বিজেপিকে সরকার গড়ার জন্য ডাকেন। এরপর কংগ্রেস দ্বারস্থ হয় সর্বোচ্চ আদালতের। সারারাত ধরে শুনানির পর আজ বৃহস্পতিবার ভোরে আদালত ছাড়পত্র দেয় ইয়েদুরাপ্পাকে। এই মামলার পার্টিও করা হয় তাঁকে।


বিজেপির ১০৪টি আসন এবং সেই সঙ্গে একজন নির্দল বিধায়ক সমর্থন করেছেন ইয়েদুরাপ্পাকে। রাজ্যপাল জানিয়েছেন, ১৫ দিনের মধ্যে বিধানসভায় সংখ্যাগরিষ্ঠতা প্রমাণ করতে হবে ইয়েদুরাপ্পাকে। নাহলে সরকার ভেঙে দেওয়া হবে।


Loading…

Be the first to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published.


*